দক্ষিণ সুরমা সাহিত্য পরিষদের সাহিত আসরে বক্তারা লেখনীর মাধ্যমে আমাদের ধর্মীয় ও সামাজিক সম্প্রীতিকে আরো সুদৃঢ় করতে হবে

003আমাদের প্রিয় মাতৃভূমিতে আমরা বিভিন্ন ধর্ম বর্ণ গোত্রের লোক বসবাস করছি। আমাদের ধর্মীয় ও সামাজিক সম্প্রীতি অনেক সুদৃঢ়। সেই সম্প্রীতি ছিল বলেই আমরা একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধের মহান বিজয় অর্জন করেছি। আমাদেরর সে সম্প্রীতিকে ধরে রাখতে হবে। আমাদের লেখনী হতে হবে সার্বজনীন। সমাজের সকল মানুষের জন্য। ধর্ম বর্ণ গোত্র নির্বিশেষে সকলের কথা থাকতে হবে লেখনীতে। লেখনীর মাধ্যমে আমাদের সম্প্রীতিকে আমরা আরো বেশি সুদৃঢ় করবো।
গত কাল ১৮ নভেম্বর শুক্রবার বিকালে স্টেশন রোডস্থ বাসিয়া প্রকাশনী কার্যালয়ে দক্ষিণ সুরমা সাহিত্য পরিষদের নিয়মিত সাহিত্য আড্ডায় বক্তারা উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।
পরিষদের সভাপতি ও মাসিক বাসিয়া পত্রিকার সম্পাদক গীতিকার মোহাম্মদ নওয়াব আলীর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক কবি দেওয়ান মতিউর রহমান খানের সঞ্চালনায় আড্ডায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আমেরিকার নিউইয়র্কে অবস্থিত মুক্তধারা ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা লেখক ও সাংবাদিক বিশ্বজিৎ সাহা। অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ছড়াকার অজিত রায় ভজন, শিক্ষক ও গল্পকার জয়নাল আবেদীন, কবি ও সংগঠক লায়েক আহমেদ নোমান, সমাজসেবী ও ক্রীড়া সংগঠক মতিউর রহমান মতি।
লেখা পাঠ ও আলোচনায় অংশ নেন শিশু সংগঠক ও ছড়াকার তাজুল ইসলাম বাঙালি, গীতিকার হরিপদ চন্দ, গল্পকার হাবিব আহমদ এহসান, ছড়াকার সুব্রত দাশ, ছড়াকার তারেশ কান্তি তালুকদার, কবি আবদুস সামাদ, নাট্যকমী মো. আবদুস শহীদ দুলাল, শিক্ষক হুমায়ূন কবীর, কবি মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম, কবি ফখরুল আল হাদী, কণ্ঠশিল্পী এন এম নূরুল, শিল্পী মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন, কবি রওনক আহমদ এনাম, কবি এম আলী হোসাইন, কবি নূর আলম বেগ, মো. ফখরুল ইসলাম, আকরাম হোসেন ও লাহিন নাহিয়ান প্রমুখ।

Please follow and like us:
error

Developed by: