দয়ামীর ইউনিয়ন ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট ইউকের পক্ষ থেকে পাকাঘর পেল ৫ দরিদ্র পরিবার

ওসমানীনগর উপজেলার দয়ামীর ইউনিয়ন ওয়েলফেয়ার ট্রাস্ট ইউকের পক্ষ থেকে প্রায় ১৫ লাখ টাকা ব্যয়ে অসহায় পাঁচ পরিবারকে নবনির্মিত ৫টি পাকা ঘরের চাবি হস্তান্তর করা হয়েছে। শনিবার (২০ এপ্রিল) বিকালে উপজেলার দয়ামীর সদরুননেচ্ছা উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে ট্রাস্টের উদ্যোগে আয়োজিত অনুষ্ঠানে অসহায় পরিবারগুলোর হাতে চাবি তুলে দেন অতিথিবৃন্দ।
ট্রাস্টের সভাপতি মোহাম্মদ আবুল কালাম এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন সিলেট জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এডভোকেট লুৎফুর রহমান। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শফিকুর রহমান চৌধুরী, বালাগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি উপজেলা চেয়ারম্যান মোস্তাকুর রহমান মফুর, ওসমানীনগর উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ময়নুল হক চৌধুরী, সিলেট জেলা আওয়ামীলীগের উপ-দপ্তর সম্পাদক আক্তারুজ্জামান চৌধুরী জগলু, ওসমানীনগর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আতাউর রহমান, সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান চৌধুরী নাজলু, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দাল মিয়া, দয়ামির ইউনিয়ন চেয়ারম্যান এসটিএম ফখর উদ্দিন, সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হামিদ, আব্দুল হাই মশাহিদ। অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ট্রাস্টের ট্রেজারার তহুর আলী, সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল ফয়েজ, ট্রাস্টের নির্বাহী সদস্য জুনেদ আহমদ, ট্রাস্টি হায়দর আলী, ট্রাস্টি সাজনা বেগম, যুবলীগ নেতা জহির মোহন।
অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন, ট্রাস্টের সাধারণ সম্পাদক বদরুল হোসাইন জুনা চৌধুরী ও তাজপুর কলেজের সাবেক ভিপি জুবায়ের আহমদ শাহিন। অনুষ্ঠানে ট্রাস্টের পক্ষ থেকে দয়ামীর ইউপির ৮নং ওয়ার্ডের চিন্তামনি গ্রামের মো. সুরত খান, ৩নং ওয়ার্ডের বড় ধিরারাই গ্রামের আকবর আলী, ৬নং ওয়ার্ডের ঘোষগাঁও গ্রামের আছকির আলী, ১নং ওয়ার্ডের রাঘরপুর গ্রামের ফয়েজ উদ্দিন ও একই ওয়ার্ডের একই গ্রামের উদ্দিনের হাতে ট্রাস্টের পক্ষ থেকে ১৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে নির্মিত ৫টি পাকা ঘরের চাবি তুলে দেন অনুষ্ঠানের অতিথিগন।
সভায় বক্তারা বলেন, ‘আমাদের স্লোগান, অসহায় মানুষের মুখে হাসি দান’ এই প্রতিপাদ্য বিষয়কে সামনে রেখে দেশ মাতৃকার টানে ২০১৪ সালে দয়ামীর ইউনিয়ন ওয়েল ফেয়ার ট্রাস্ট গঠন করে এলাকার হতদারিদ্র মানুষের কল্যানে কাজ করে যাচ্ছে। এর ধারাবাহিককতায় বন্যাদুর্গতদের সহায়তা প্রদান, রমজান মাসে রোজাদারদের মধ্যে ইফতার সামগ্রী বিতরণ, ফ্রি খৎতনা কাযক্রম, ফ্রি চক্ষু শিবির, গরিব অসহায় মানুষদের বসত ঘর দালান কোঠায় রুপান্তরের কাজ করে সর্বমহলে প্রশংসা খুঁড়িয়েছে। ট্রাস্টের পক্ষ থেকে প্রায় ১৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে দয়ামীর ইউনিয়নে ৫ টি অসহায় পরিবারের বসতঘর পাকাকরণের কাজ সম্পূন্ন করার পর গ্রহীতারদের কাছে চাবি হস্তান্তর করার মাধ্যমে ট্রাস্টের জনকল্যানমুখি কার্যক্রম আরও একধাপ এগিয়ে যাবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।

Developed by: